VPN কি? VPN কিভাবে কাজ করে?

আমরা যারা টুকটাক নেট ইউজ করি। তারা হয়তো জানবো যে নেট ইউজ করার সময় কিছু বিশেষ সুবিধার জন্য VPN ব্যবহার করা হয়।

VPN কি?

যারা যানেন না ভি.পি.এন আসলে কি…তাদের জন্য বলি VPN হচ্ছে Virtual Private Network.

একটা সময় ছিল যখন মানুষ মনে করতো vpn ব্যবহার করা হয় ফ্রী তে নেট ইউজ করার জন্য।

এটা আসলে একটা ভুল ধারণা। vpn কখনোই আমাদেরকে ফ্রী নেট প্রদান করে না। এটা তৈরী করা হয়েছে। আলাদা একটি আই.পি.এড্রেস তৈ রী করার জন্য।

VPN কিভাবে কাজ করে?

vpn shield 4634563 640
Vpn

একটি vpn যখন আমরা আমাদের ফোনে বা পিসিতে একটিভ করি, তখন নেট ব্যবহার করার জন্য আমাদের নতুন একটি আই.পি.এড্রেস তৈরী হয়।

আর এ এড্রেসটি একটি গুপন সুরঙ্গ পথের মতো।

আর এ নতুন ip এড্রেসটি অন্য দেশের একটি নতুন সার্ভারের সাথে যুক্ত হয়ে যায়।যার ফলে ডিভাইসের লোকেশন জানা সম্ভব হয় না।

VPN কেন ব্যবহার করা হয়?

তো আপনার মনে প্রশ্ন আসতে পারে যে, ভি.পি.এন কেন ইউজ করা হয়?

নিচে আমি পয়েন্ট আকারে সেগুলো বলে দিচ্ছি।

Private network এ ঢুকতে হলে

ইন্টারনেটে এমন কিছু ওয়েবসাইট রয়েছে যেগুলো শুধুমাত্র নির্ধারিত কোন লোকেশন এর জন্য তৈরি করা হয়েছে।

vpn চালু করে আমরা যে কোন জায়গা থেকে সে ওয়েবসাইট ভিজিট করতে পারি।

মনে করুন জাপানের জন্য একটা ওয়েবসাইট তৈরী করা হলো। এটা এমন একটি ওয়েবসাইট যেখানে শুধুমাত্র জাপানের লোকেরাই তাদের দেশ থেকে ইউজ করতে পারবে।

এ অবস্থায় সাধারণত আপনি কিন্তু বাংলাদেশ বা ইন্ডিয়া থেকে জাপানের সে ওয়েবসাইট টি ভিজিট করতে পারবেন না।

কারণ সেটা তৈরী ই করা হয়েছে শুধুমাত্র এবং কেবলমাত্র জাপানে বসবাসরত লোকদের জন্যই।

এখন আপনি যদি ভি.পি.এন ইউজ করেন আর সেখানে জাপান সিলেক্ট করে একটিভ করে রাখেন, আপনি কিন্তু সে ওয়েবসাইট টি কোন রকম সমস্যা ছাড়াই ভিজিট করতে পারবেন।

আপনি বিশ্বের যে কোন কান্ট্রিতেই থাকেন না কেন। যা vpn ছাড়া কোন ভাবেই সম্ভব ছিল না।

আমরা সকলেই জানি, ইন্টারনেটের এ বিশাল দুনিয়ায় অসংখ্য ওয়েবসাইট রয়েছে। ইন্টারনেট চলেই ওয়েবসাইট গুলোর উপর ভিত্তি করে।

তাই গ্লোবাল হোক বা প্রাইভেট ই হোক সবরকমের ওয়েবসাইট কোন রকম বাধা ছাড়া ভিজিট করার জন্য আমরা ভিপিএন ইউজ করতে পারি।

Apps/Software বা Games নামাতে-

আমরা সবাই আমাদের ফোনে ও পিসিতে নানা রকম এপ্স/সফটওয়্যার ব্যবহার করে থাকি। সেই সাথে খেলি থাকি নানারকমের ভালো ভালো গেমস।

Also read,

আপনি জানেন কি এমন কিছু এপ্স ও গেম রয়েছে যেগুলো শুধু কিছু কান্ট্রির জন্য তৈরি করা হয়। বা রিলিজের সময় গেম ডেভেলপার রা কোন কোন দেশে ডাউনলোড করা যাবে তা ঠিক করে দেন।

ফলে যা হয় তা হচ্ছে, আমরা সে গেমগুলো বা এপ্স গুলো নামাতে VPN এর সাহায্য নিতে হয়।

উদাহরণ হিসেবে আমি বলতে পারি এন্ড্রয়েডের সবচেয়ে জনপ্রিয় ফুটবল গেম Pes(পেস) এর কথা। এ গেমটির বাংলাদেশে প্রায় ২.৫ লাখের বেশি প্লেয়ার থাকলেও প্লেস্টোরে বাংলাদেশ থেকে এটা ডাউনলোড করা যায় না।

তারজন্য আমাদের vpn চালু করতে হয়।

নিরাপত্তা রক্ষার্থে –

আমরা প্রায় সবাই কম বেশি ইন্টারনেট ইউজ করি। এতে এমন অনেক ওয়েবসাইট আছে যা আমাদের লোকেশন সহ অনেক গোপনীয় ও সিকিউরিটির সাথে জড়িত এমন কিছু ট্র‍্যাক করে ফেলে।

ভিপিএন
Security

খারাপ হ্যাকাররা সে তথ্য নিয়ে আমাদের আমাদের ওয়েবসাইট /পিসি হ্যাক করে ফেলে আর ব্ল্যাকমেইল করে। যা অনেক ভোগান্তির সৃষ্টি করে।

আমরা যদি ইন্টারনেট ইউজ করার সময় Vpn ইউজ করি তাহলে আমাদের লোকেশন ও আইপি এড্রেস লুকানো থাকে।

আপনি যদি আপনার গুপনীয় তথ্য গুলো নিরাপদ রাখতে পারেন, তাহলে এ রকম মারাত্মক সমস্যাগুলো খুব সহজেই এড়ানো সম্ভব হয়।

খারাপ দিক:

ভালো মানুষের পাশাপাশি দুনিয়াতে অনেক খারাপ মানুষ ও আছে। যারা সব কিছুর খারাপ দিক টাকেই ব্যবহার করে।

ভালো কাজের পাশাপাশি অনেক খারাপ কাজও কিন্তু vpn দিয়ে করা হয়।

নিরাপত্তার জন্য বলে রাখা ভালো,

হ্যাকাররা হ্যাকিং করার সময় ভিপিএন ইউজ করে লোকেশনের পাশাপাশি তাদের সমস্ত ডাটা বা তথ্যগুলো গুপন রাখে।

ফলে তাদের খুঁজে বের করা সম্ভব হয় না। যা vpn এর অবশ্যই একটি খারাপ দিক।

Vpn ইউজ করা কতটুকু বৈধ?

vpn ইউজ করা বৈধ না অবৈধ সে সম্পর্কে বলতে গেলে একটা কথায় তা স্পষ্ট হয়ে যায়।”যে সমস্ত কাজ গুলো সাধারণ ভাবে সবার জন্য অবৈধ সে কাজ গুলো ভিপিএন ব্যবহার করে করাও অবৈধ”।

আবার মনে করুন, কিছু কিছু এমন ওয়েবসাইট আছে যে গুলো কিছু দেশের জন্য ব্যবহার করা রাষ্ট্রীয়ভাবে নিষিদ্ধ। সে ওয়েবসাইট গুলোতে বাংলাদেশ ইন্ডিয়া বা যে কোন দেশেই আপনি থাকেন না কেন তাতে প্রবেশ করা যাবে না।

প্রবেশ করার চেষ্টাও করবেন না। কারণ রাষ্ট্রের কাছে আপনার আমার থেকে অনেক উন্নত প্রযুক্তি আছে।

যে গুলো দিয়ে অপরাধী সনাক্ত করা কোন ব্যাপার ই না।

আর মনে রাখবেন, মানুষ মাত্রই একজন আরেকজনের কাছে নিরাপদ হবে।

আজ আমরা এ আর্টিকেল থেকে শিখতে পারলাম :

  • ভিপিএন কি? কিভাবে কাজ করে?
  • এটা কেন আমরা ব্যবহার করবো।
  • ভিপিএন ব্যবহারে সুবিধা ও অসুবিধা।
  • এর ভালো দিক ও খারাপ দিক।
  • Vpn এর বৈধতা ও অবৈধতা।
  • ইন্টারনেটে আমাদের নিরাপত্তা।

শেষকথাঃ

আজ আমরা এ আর্টিকেলে Vpn (ভি.পি.এন) সম্পর্কে খুটিনাটি সব জানলাম। আমাদেরকে সবসময় আমাদের নিরাপত্তার দিকে খেয়াল রাখতে হবে।

সবসময়ের ব্যবহার করা ইন্টারনেট সেবা যেন কখনোই আমাদের ক্ষতির কারণ না হয়।

শেয়ার করে জানিয়ে দিন সবাইকে। জানুন আপনি, জানুক সবাই। নিরাপদ থাকুক সকল মানুষ।

This Post Has 5 Comments

  1. Saif

    Thank you so much Amin bin taj

  2. Techmoshai Amin

    thank you so much….Saif
    Stay with technology
    Stay with Techmoshai

  3. MD TANJIL MIA

    Good job guys .

Leave a Reply